মাকে নির্যাতন: নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে পিতার বিরুদ্ধে পুত্রের অভিযোগ

নিশান রিপোর্ট, সোনাইমুড়ী(নোয়াখালী) : নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে মাকে নির্যাতন করায় পিতা খোরশেদ আলমের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দিয়েছে পুত্র ছালে আহাম্মদ বাবলু। গত ২৩ আগষ্ট থানায় দেয়া এই লিখিত অভিযোগ পুলিশ গ্রহন করলেও আজ পর্যন্ত অভিযুক্তের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। এ নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।
অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার বজরা ইউনিয়নের বারাহিনগর গ্রামের নোয়াব আলী কন্ট্রাকটার বাড়ির মৃত ওয়ালী মিয়ার পুত্র খোরশেদ আলম ইতিপূর্বে প্রবাসে ছিলেন। তিনি স্ত্রী ছালেহা বেগমকে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন ভাবে না না অজুহাতে শারীরিক ও মানষিক নির্যাতনসহ প্রতিনিয়ত মারধর পূর্বক ভয়ভীতি প্রদর্শনসহ তালাক দেওয়ার হুমকি দেয়। বিষয়টি সমাধানে এলাকায় একাধিকবার শালিস হলেও কোন সমাধান হয়নি। গত ২১ আগষ্টও খোরশেদ স্ত্রীকে মারধর করে আবারও নির্যাতনের হুমকি দেয়। এরি ধারবাহিকতায় গত ২২ আগষ্ট দুপুরে খোরশেদ আলম স্ত্রী ছালেহা বেগমকে শ^াসরোধে হত্যার চেষ্টার পাশাপাশি এলোপাথাড়ি মারধর ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে। এ সময় পুত্র বাবলুসহ বাড়ির লোকজন ছালেহা বেগমকে বাঁচাতে গেলে খোরশেদ তাদেরকেও পিটিয়ে আহত করে। পরে বাড়ির লোকজন গুরুতর আহত ছালেহাকে উদ্ধার করে চৌমুহনীর পূর্ব বাজারস্থ কমপোর্ট হাসপাতালে ভর্তি করে । এদিকে মা ছালেহা বেগমকে পিটিয়ে আহত করার ঘটনায় পুত্র ছালে আহাম্মদ ববলু বাদী হয়ে পিতা খোরশেদ আলমের বিরুদ্ধে গত ২৩ আগষ্ট সোনাইমুড়ী থানায় লিখিত অভিযোগ (নং-৮৫৩) দায়ের করে। অভিযোগটি তদন্ত করছেন থানার এস.আই ফারুক হোসাইন। কিন্তু অভিযোগ দেয়ার চার দিন পার হয়ে গেলেও পুুলিশ অভিযুক্তের বিরুদ্ধে আইগত কোন ব্যবস্থা গ্রহন করেনি। ফলে ন্যায় বিচার নিয়ে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন বাদী।
অভিযোগের বাদী ছালে আহাম্মদ বাবলু জানান, আমার দুই ফুফুকে বাড়িতেই বিয়ে দেয়া হয়। যার জন্য তারা সময় আমাদের সংসারে এসে ঝামেলা করে। আমার ফুফুদের ইন্দনেই আমার বাবা আমার মাকে মারধর করে। মায়ের উপর অত্যাচার সহ্য করতে না পেরেই বাবার বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দিয়েছি। কিন্তু পুলিশ এখনো কোন ব্যবস্থা গ্রহন করেনি। ন্যায় বিচারের স্বার্থে আমরা প্রশাসনের উর্ধতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।
এ ব্যাপারে সোনাইমুড়ী থানার ওসি আবদুস সামাদের সাথে আলাপ করলে তিনি বলেন, প্রাথমিক ভাবে জেনেছি পারিবারিক ব্যাপার। তবুও অভিযোগটি আমরা তদন্ত করে দেখবো।

Share Button

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *