শিরোনাম :
অনিক বাহিনীর কাছে জিম্মি শরীফপুর ইউনিয়নবাসী খতমে নুবুয়ত ইসলামি মহা সম্মেলন অনুষ্ঠিত নির্মাণ শ্রমিক ফেডারেশন বেগমগঞ্জ উপজেলা শাখার উদ্যোগে মহান মে দিবস পালন নাটেশ্বরে এমপির নাম ভাঙ্গিয়ে অপকর্ম ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী শিক্ষার্থী রাহির নামে অপপ্রচার, নোয়াখালীতে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন মদিনা বাজার যুব সমাজের উদ্যোগে যুবকদের সম্মানে ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত প্রবাসীর সহযোগীতায় নোয়াখাালীতে মানবসেবা ফাউন্ডেশনের উদ্দ্যোগে ইফতার ও ঈদ উপহার  হাতিয়ার মানুষের জীবনযাত্রার উন্নয়নে কাজ করবেন সুইডেনের রাজকন্যা   কোম্পানীগঞ্জে বৈদ্যুতিক শট সার্কিটের আগুনে পুড়ল ৮ দোকান ২১ বছর বয়সে দেখায় শিশুর মত, আকৃতি দমাতে পারেনি ৩ ফুট ১০ ইঞ্চির সোনিয়াকে

ছিন্নমূল মানুষকে কম্বলের উষ্ণতায় জড়ালেন পরাজিত প্রার্থী

  • আপডেট সময় : শনিবার, জানুয়ারি ১৩, ২০২৪
  • 370 পাঠক
জাতীয় নিশান প্রতিবেদক : দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নোয়াখালী-৪ (সদর-সুবর্ণচর) আসনে পরাজিত হয়েও শীতের তীব্রতা বাড়ায় কম্বলের উষ্ণতায় ছিন্নমূল মানুষকে জড়িয়ে নিয়েছেন বাংলাদেশ রেড় ক্রিসেন্ট সোসাইটি কেন্দ্রীয় বোর্ড মেম্বার ও জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি এডভোকেট শিহাব উদ্দিন শাহিন।

শুক্রবার (১২ জানুয়ারি) দিবাগত গভীর রাতে মাইজদী ও সোনাপুর রেলস্টেশন, সোনাপুর বাসস্ট্যান্ড এবং জেলা শহর মাইজদী, সোনাপুর, দত্তের হাটের ফুটপাতে ঘুরে ঘুরে সহস্রাধিক ছিন্নমূল, অসহায় শীতার্ত মানুষের মাঝে বাংলাদেশ রেড় ক্রিসেন্ট সোসাইটি ও নিজ ব্যক্তিগত উদ্যোগে  কম্বল বিতরণ করেন শাহিন।
শিহাব উদ্দিন শাহিন সদ্য সমাপ্ত সংসদ নির্বাচনে নোয়াখালী-৪ আসনে ট্রাক প্রতীক নিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসাবে লড়াই করেছিলেন।
কম্বল বিতরণের সময় বাংলাদেশ রেড় ক্রিসেন্ট সোসাইটি নোয়াখালী ইউনিটের সহকারী পরিচালক আবদুল করিম, যুব রেড় ক্রিসেন্টের সদস্য ও দলীয় নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।
বাংলাদেশ রেড় ক্রিসেন্ট সোসাইটি কেন্দ্রীয় বোর্ড মেম্বার ও জেলা ইউনিটের সেক্রেটারী এডভোকেট শিহাব উদ্দিন শাহিন বলেন, গত কয়েকদিন ধরে শীতের প্রকোপ বেড়েছে। হিমেল  হাওয়া আর কনকনে শীতে বিপাকে রয়েছেন নোয়াখালী শহরের ভবঘুরে, অসহায় ও ছিন্নমূল মানুষ। গরম কাপড়ের অভাবে তীব্র শীত সঙ্গে নিয়ে দিনাতিপাত করতে হচ্ছে তাদের। যে কারণে আমরা গভীর রাতে বিভিন্ন স্থানে ঘুরে ঘুরে শীতার্ত মানুষের হাতে কম্বল পৌঁছে দিচ্ছি। কারণ এই শীতের মধ্যে সবচেয়ে বেশি কষ্টে থাকে ছিন্নমূল অসহায় দরিদ্র মানুষগুলো।
এ শ্রেণীর মানুষগুলো এমনিতেই অসহায়ভাবে জীবন-যাপন করে থাকে। দিনের বেলায় তারা পেটের দায়ে বিভিন্ন জায়গায় থাকে বলে রাতের বেলায় খুঁজে খুঁজে তাদের হাতে কম্বল পৌঁছে দিচ্ছি।
বাংলাদেশ রেড় ক্রিসেন্ট সোসাইটি ও নিজ ব্যক্তিগত উদ্যোগে সহস্রাধিক শীতার্ত মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

সামাজিক যোগাযোগ মধ্যমে শেয়ার করুন...

এ বিভাগের আরো খবর....

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *